পুরুষ জিরাফ না থাকায় হচ্ছে না বংশ বৃদ্ধি

চ্যানেল ৯৬বিডি.কম গাজীপুর : গাজীপুরের শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে পুরুষ জিরাফ না থাকায় সদস্য বাড়ছে না জিরাফ পরিবারের। পার্কে মাত্র তিনটি জিরাফ রয়েছে। তিনটিই স্ত্রী লিঙ্গের। তবে পার্কটিতে বাঘ, ভালুক, সিংহ, হাতি, হরিণ, বানর, জেব্রা, ময়ূর, কুমির, বনগাই, নীলগাই, সাপ, উটপাখি, জিরাফসহ প্রায় ৭০ প্রজাতির বন্যপ্রাণি রয়েছে। এসব প্রাণির প্রায় প্রত্যেক পরিবারের বংশবৃদ্ধি হচ্ছে।
পার্ক কর্তৃপক্ষ জানান, এ পার্কে বন্যপ্রাণির সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিন্তু জিরাফ পরিবারে পুরুষ জিরাফ না থাকায় এ পরিবারে বংশবৃদ্ধি হচ্ছে না। বংশবৃদ্ধি না হলে একসময় জিরাফ শূন্য হয়ে পড়বে সাফারি পার্কে। বংশবৃদ্ধির কারণে এ পার্কে গত কয়েক বছরে জেব্রা পরিবারের সংখ্যা দ্বিগুণ হয়ে গেছে। শুধু পুরুষ জিরাফ না থাকায় বাড়ছে না জিরাফ পরিবারের সদস্য।
পার্কে আসা দর্শনার্থীরা বলেন, এ পার্কে অসংখ্য হরিণ, বানর, জেব্রা দলে দলে ঘুরে বেড়াচ্ছে। এছাড়াও বাঘ, সিংহ, ভালুক, হাতি, বনগাই, সাপ ও কুমিরসহ রয়েছে অসংখ্য পাখি। দেখতে খুবই চমৎকার। বনের ভেতর লম্বা গলায় উঁচু গাছের লতা-পাতা খাচ্ছে তিনটি জিরাফ। এসব দৃশ্য দেখে যে কারও মন ভালো হয়ে যাবে।
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও বন সংরক্ষক মো. তবিবুর রহমান জানান, পার্কে বন্যপ্রাণিদের মধ্যে প্রায় সকল প্রাণি থেকেই নিময়িত বাচ্চা পাচ্ছি। এখানে বর্তমানে তিনটি মাদি জিরাফ রয়েছে। তবে পুরুষ জিরাফ না থাকায় জিরাফের বংশবৃদ্ধি হচ্ছে না।
মাদি জিরাফের সঙ্গী হিসেবে পুরুষ জিরাফ আনা হলে জিরাফ পরিবারের বংশবৃদ্ধি হবে বলে তিনি আশা করছেন।