মাইকে ঘোষণা দিয়ে ছাত্রদের ওপর হামলা, আহত ৩০

চ্যানেল ৯৬বিডি.কম,

সাভার : মাইকে ঘোষণা দিয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। শুক্রবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় ওই হামলার ঘটনা ঘটে। বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন গেরুয়া গ্রামে মসজিদের মাইক থেকে ঘোষণা দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায় গ্রামবাসী। ওই ঘটনায় অন্তত ৩০ শিক্ষার্থী গুরুতর আহত হয়েছেন। আহতদের বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল সেন্টার এবং সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেওয়ার পর কয়েকশ’ গ্রামবাসী লাঠি-সোটা এবং ধারালো অস্ত্র নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায়। এছাড়াও, ওই গ্রামে জাবি শিক্ষার্থীদের আবাসিক ভবন এবং ছাত্রাবাসগুলোতে খুঁজে খুঁজে শিক্ষার্থীদের মারধর করা হয় এবং শিক্ষার্থীদের কয়েকটি মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া হয়।এ ব্যাপারে জাবি এক শিক্ষার্থী  জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের গেরুয়া বাজার গেট অতিক্রম করে গ্রামবাসীদের একটি মিছিল ক্যাম্পাসে প্রবেশ করতে দেখেছেন তিনি। মিছিল থেকে গুলির শব্দও শুনেছেন। ওই গ্রামে বসবাসরত জাবি শিক্ষার্থীরা আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন বলে জানান ঐ শিক্ষার্থী।এ ব্যাপারে জাবি’র প্রক্টর আ.স.ম. ফিরোজ উল হাসান সংবাদ মাধ্যমকে জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের বাইরের কোনো ঘটনার দায়িত্ব তাদের পক্ষে নেওয়া সম্ভব নয়। এদিকে, করোনা মহামারির শুরু থেকেই জাবি’র হলগুলো বন্ধ রয়েছে। কিন্তু, টিউশানি, চাকরি পরীক্ষার প্রস্তুতিসহ বিভিন্ন কারণে বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিকাংশ শিক্ষার্থী জাবি সংলগ্ন গ্রামগুলোতে বাড়ি ভাড়া নিয়ে বসবাস করে আসছেন। তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তাদের সবার ওপর নির্যাতন চলছে বলে সোশ্যাল মিডিয়ায় জানিয়েছেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীরা।শিক্ষার্থীদের অনেকেই সামাজিক যোগাযোগের প্ল্যাটফর্ম ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে নিজেদের অসহায়ত্বের কথা তুলে ধরেছেন এবং বিশ্ববিদ্যালয় ও পুলিশ প্রশাসনের কাছে সাহায্য চেয়েছেন।